Home রাজনীতির সময় মমতার সফরের সময়ই দিল্লিতে বিক্ষোভ দেখাবেন রাজ্যের বিজেপি বিধায়করা, সামনে থেকে নেতৃত্ব...

মমতার সফরের সময়ই দিল্লিতে বিক্ষোভ দেখাবেন রাজ্যের বিজেপি বিধায়করা, সামনে থেকে নেতৃত্ব দেবেন শুভেন্দু

মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের দিল্লি সফরের সময়ই রাজধানীতে গিয়ে বিক্ষোভ দেখাতে পারেন পশ্চিমবঙ্গের বিজেপি বিধায়করা৷ বিজেপি সূত্রে খবর, মূলত মুকুল রায়ের দলত্যাগের ইস্যুকে হাতিয়ার করেই রাজধানীর বুকে বিক্ষোভের পরিকল্পনা করছে রাজ্য বিজেপি৷ বিক্ষোভের নেতৃত্বে থাকবেন বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী৷

চলতি মাসের শেষ সপ্তাহে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের দিল্লি যাওয়ার কথা৷ আগামী ১৯ তারিখ, সোমবার থেকে সংসদের বাদল অধিবেশনও শুরু হতে চলেছে৷ প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি, রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দেের সঙ্গে সাক্ষাতের পাশাপাশি সংসদেও যেতে পারেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷

আর ঠিক সেই সময়ই সংসদের সামনে বিক্ষোভ দেখিয়ের মুখ্যমন্ত্রী এবং তৃণমূলকে চাপে ফেলার কৌশল নিয়েছে রাজ্য বিজেপি৷ তবে শুভেন্দুরা কবে দিল্লি যাবেন তা এখনও চূড়ান্ত হয়নি৷

মুকুল রায়ের বিরুদ্ধে দলত্যাগ বিরোধী আইন কার্যকর করে তাঁর বিধায়কপদ বাতিলের জন্য ইতিমধ্যেই বিধানসভার অধ্যক্ষের কাছে দাবি জানিয়েছে বিজেপি৷ মুকুলকে অনৈতিক ভাবে পিএসি চেয়ারম্যান পদে বসানো হয়েছে বলেও অভিযোগ বিজেপি শিবিরের৷

মুকুলের সদস্যপদ বাতিল নিয়ে আজ থেকে বিধানসভায় শুনানি শুরু হলেও তাতে আস্থা নেই বিরোধী দলনেতার৷ ফলে হাইকোর্টে মামলা দায়েরর পাশাপাশি মুকুল রায় ইস্যুকে এবার দিল্লি নিয়ে যাওয়ার তোড়জোড় করছেন বিরোধী দলনেতা৷ সূত্রের খবর সংসদের অধিবেশন শুরু হওয়ার পরই বিধায়কদের নিয়ে দিল্লিতে গিয়ে মুকুল রায় ইস্যুতে রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দের সঙ্গে দেখা করে

তাঁর হস্তক্ষেপ প্রার্থনা করতে পারেন শুভেন্দু অধিকারী৷ পাশাপাশি বিষয়টি জাতীয় সংবাদমাধ্যমের নজরে আনতে সংসদের বাইরেও বিক্ষোভ দেখানোর পরিকল্পনা নিচ্ছে বিজেপি শিবির৷ তাতে এক ঢিলে দুই পাখি মারা হবে বিজেপি-র৷ একদিকে যেমন দিল্লি সফর চলাকালীন মুখ্যমন্ত্রীকে অস্বস্তিতে ফেলা যাবে, সেরকমই মুকুল রায় ইস্যুতে শাসক দলের উপরেও চাপ বাড়ানো যাবে৷

রাজ্য বিজেপি সূত্রে খবর, প্রথমে ঠিক ছিল ভোট পরবর্তী হিংসার অভিযোগ নিয়ে অগাস্ট মাসে দিল্লিতে গিয়ে বিক্ষোভ দেখাবেন রাজ্যের বিজেপি বিধায়করা৷ কিন্তু বৃহস্পতিবার মুখ্যমন্ত্রী তাঁর দিল্লি সফরের কথা জানানোর পরই তড়িঘড়ি নতুন পরিকল্পনা তৈরি করেন শুভেন্দুরা৷

শোনা যাচ্ছে, বাংলায় বিপুল জয়ের পর দিল্লিতে গিয়ে বিরোধীদের একজোট করার কাজ শুরু করতে পারেন মমতা৷ সনিয়া গান্ধি, অরবিন্দ কেজরীওয়ালদের সঙ্গে বৈঠকও করতে পারেন তিনি৷ পাঁচ দিন দিল্লিতে থাকতে পারেন মুখ্যমন্ত্রী৷ মমতার এই দিল্লি সফর নিয়ে রাজনৈতিক মহলের

তুমুল কৌতহল তৈরি হচ্ছে৷ আর ঠিক সেই সময় দিল্লিতে গিয়ে বঙ্গ বিজেপি বিধায়করা দিল্লিতে গিয়ে বড়সড় বিক্ষোভ কর্মসূচির আয়োজন করলে জাতীয় সংবাদমাধ্যমের নজরও অন্য দিকে ঘুরিয়ে দেওয়া যাবে বলেই মনে করছে বিজেপি শিবির৷

RELATED ARTICLES

Most Popular